‘হোমল্যান্ডস’ যুক্তরাজ্যে আলোড়ন তৈরি করেছে

‘হোমল্যান্ডস’ বাংলাদেশ, ভারত ও পাকিস্তানের ১১ জন সমসাময়িক শিল্পীর শিল্পকর্মের প্রদর্শনী। প্রদর্শনীটি চলছে যুক্তরাজ্যের ক্যামব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের কেটলিজ ইয়ার্ডে। দুর্জয় বাংলাদেশ ফাউন্ডেশন (ডিবিএফ) বিভিন্ন কর্মসূচির পাশাপাশি প্রদর্শনীটিতে সহায়তা করেছে।

ডিবিএফের প্রতিষ্ঠাতা দুর্জয় রহমান বলেছেন, ‘ডিবিএফ বিশ্বজুড়ে দক্ষিণ এশীয় শিল্পীদের কাজ এবং গ্রহণযোগ্যতার প্রচারে বদ্ধপরিকর। এই প্রদর্শনীর একটি অংশ হতে পেরে আমি আনন্দিত। এই সহযোগিতাটিকে আমরা যুক্তরাজ্য এবং দক্ষিণ এশিয়ার মধ্যে সাংস্কৃতিক ও সৃজনশীলতা বিনিময়ের সেতু শক্তিশালী করার গুরুত্বপূর্ণ মুহূর্ত হিসেবে চিহ্নিত করি।’

প্রদর্শনীটি বাংলাদেশ, ভারত এবং পাকিস্তানের আধুনিক চিত্রশিল্প নির্মাণের জন্য গুরুত্বপূর্ণ।

এটি ১৯৪৭ সালে দেশ ভাগের প্রতিযোগিতামূলক ইতিহাস এবং ১৯৭১ সালে বাংলাদেশের স্বাধীনতা সম্বোধন করে। যার ফলে দেশগুলোতে ব্যাপক সহিংসতা ও জনগণের স্থানচ্যুতি হয়েছিল। একই সঙ্গে দক্ষিণ এশিয়া এবং তার বাইরেও ঘর ও জাতীয়তার সমসাময়িক অস্থিতিশীলতা ছিল। তীব্র জাতীয়তাবাদের প্রতিক্রিয়া হিসেবে অংশ নেয়া শিল্পীরা ইচ্ছাকৃতভাবে অন্তরঙ্গ এবং রাজনৈতিক উভয় ইতিহাসের সঙ্গে জড়িত।

ডা. দেবিকা সিং বর্তমানে টেট মডার্নে ইন্টারন্যাশনাল আর্টের কিউরেটরের দায়িত্ব পালন করছেন। এই প্রদর্শনীতে ডেসমন্ড লাজারো, শেহের শাহ, সোহরাব হুরা, ইয়াসমিন জাহান নূপুর, ইফতিখার দাদি, এলিজাবেথ দাদি এবং মুনিম ওয়াসিফসহ বেশ কয়েকজনের নতুন পারফরম্যান্স আর্ট, চিত্রকর্ম, ভিডিও, ফটোগ্রাফি এবং ইনস্টলেশন রয়েছে। পাশাপাশি নিখিল চোপড়ার নতুন কল্পনা করা অভিনয়। প্রদর্শনীতে বনি আবিদি, শিল্পা গুপ্ত ও জারিনার কাজও প্রদর্শিত হচ্ছে।


‘এফ্লোরেসসেন্স’- ইফতিখার ও এলিজাবেথ দাদি

প্রদর্শনীর বিশেষ কাজগুলোর মধ্যে মুনেম ওয়াসিফের ‘বসন্তের গান’ একটি নতুন ফটোগ্রাফিক প্রকল্প অন্তর্ভুক্ত। মিয়ানমারের সামরিক স্বৈরশাসকদের অত্যাচারে দেশ ছাড়তে বাধ্য হওয়া রোহিঙ্গা শরণার্থীরা তাদের সঙ্গে বাংলাদেশে নিয়ে এসেছিল এই রেকর্ডের বিষয়গুলো। কক্সবাজারের শরণার্থী শিবির থেকে সংগ্রহ করা প্রদর্শিত বস্তুগুলোর মধ্যে আছে খেলনা থেকে শুরু করে মূল্যবান পারিবারিক নথি ও ফটোগ্রাফ।

শেহের শাহের ‘আর্গুমেন্ট অব সাইলেন্স’ ভারতের প্রাচীন চণ্ডীগড়ের লে করবুসিয়ার ডিজাইন করা সরকারি জাদুঘর এবং আর্ট গ্যালারিটিতে রাখা প্রাচীন গান্ধার ভাস্কর্যগুলোর একাধিক ছবির পুনর্নির্মাণ।

অন্যান্য প্রদর্শনীর মধ্যে বাংলাদেশ, ভারত ও পাকিস্তানের ‘হোমল্যান্ডস : আর্ট, কনফ্লিক্ট অ্যান্ড ডিসপ্লেসমেন্ট’ শীর্ষক একটি আন্তর্জাতিক সিম্পোজিয়াম অনুষ্ঠিত হয়েছিল। যেখানে শিল্পী, লেখক ও গবেষকদের উপস্থাপনাসহ প্রদর্শনী থেকে এর থিম খুঁজে বের করা হয়।

কেটলের ইয়ার্ড আধুনিক এবং সমসাময়িক শিল্প সংগ্রহসহ ব্রিটেনের একটি সুন্দর ও অন্যতম সেরা গ্যালারি।

ডিবিএফ আন্তর্জাতিকভাবে দক্ষিণ এশিয়া এবং এর বাইরে শিল্পকলা ও শিল্পীদের প্রচার করে। এটি শিল্পীদের প্রাসঙ্গিক প্রদর্শনী এবং প্রকাশনাসহ নতুন শিল্পকর্ম তৈরিতে সহায়তা করে। বার্লিন এবং ঢাকায় অফিস রয়েছে ডিবিএফের।

 

-আব্দুল্লাহ আল আমীন

Anonymous এর ছবি
CAPTCHA
এই প্রশ্নটি আপনি একজন মানব ভিজিটর কিনা তা যাচাই করার জন্য এবং স্বয়ংক্রিয় স্প্যাম জমাগুলি প্রতিরোধ করার জন্য।