‘মনে হচ্ছিল গাড়িটাকে উল্টিয়ে ফেলবে’: সৈয়দ আবদুল হাদী

গানের অনুষ্ঠান করতে গিয়ে অনেকবার ঝড়ের মুখোমুখি হয়েছি। দেখা গেছে গান করছি খোলা মাঠের স্টেজে। হঠা করে ঝড় শুরু হলো। মানুষজন সব এলোপাতাড়ি দৌড় দিল। এক সময় ঝড় শেষ হলো, আবার গান শুনতে আসা মানুষজন একসঙ্গে হলো। গান শুরু হলো কিন্তু আবার ঝুম বৃষ্টি। আমার মাথায় একজন ছাতা ধরে আছে আর আমি একের পর এক গান করছি। ঝড় আর বৃষ্টির মধ্যে গান গাওয়ার অনেক ঘটনা আছে।

তবে ঝড়ের মধ্যে আম কুড়ানোর স্মৃতি সবচেয়ে ভালো লাগে বেশি। ঝড় আসা মানে আম গাছের নিচে যাওয়া। ঝুড়ি সঙ্গে নিয়ে আম কুড়াতে যেতাম বন্ধুদের সঙ্গে। কত যে আম কুড়িয়েছি তার শেষ নেই। তারপর বন্ধুদের সঙ্গে কাঁচা আম ঝিনুক দিয়ে ছিলে খেয়েছি। এছাড়া আমের সময় একটা ছুরি থাকত সঙ্গে। এটার যে কী মজা এখনকার ছেলে-মেয়েরা সেটা জানেই না। কী আবেগ মিশে আছে ছোটবেলার আম কুড়িয়ে খাওয়ার মধ্যে। তারা সেই আনন্দ থেকে অনেক দূরে।

ঝড়ের মধ্যে একবার পড়েছিলাম কুমিল্লা যাওয়ার পথে। নিজে গাড়ি ড্রাইভ করছিলাম। মনে হচ্ছিল গাড়িটাকে উল্টিয়ে ফেলবে। ঝড়ের গতি ছিল অনেক। ভীষণ ভয় পেয়েছিলাম। আমি বোকার মতো বাঁচার জন্য একটা গাছের নিচে আশ্রয় নিয়েছিলাম। ভাগ্য ভালো ছিল গাছের ডাল ভেঙে পড়েনি। আজকাল তো দেখি গাছ পড়ে মানুষ মারা যাচ্ছে। ঝড় দেখলে আমার কুমিল্লা যাওয়ার ঘটনাটা খুব মনে পড়ে।

Anonymous এর ছবি
CAPTCHA
এই প্রশ্নটি আপনি একজন মানব ভিজিটর কিনা তা যাচাই করার জন্য এবং স্বয়ংক্রিয় স্প্যাম জমাগুলি প্রতিরোধ করার জন্য।